শিরোনাম

জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এমপি বলেছেন, প্রশিক্ষণ গ্রহণের মাধ্যমে নারীদেরকে দক্ষ জনশক্তি হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। সুযোগ পেলে দক্ষ নারী নিজেই নিজের কর্মক্ষেত্র তৈরি করতে পারে এবং স্বাবলম্বী হতে পারে। সব স্তরের নারীকে অর্থনীতির মূলধারার সঙ্গে সম্পৃক্ত করতে পারলে নারী অর্থনৈতিক ক্ষমতায়ন নিশ্চিত হবে। শনিবার রংপুরের পীরগঞ্জে নিজ নির্বাচনী এলাকায় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে জাতীয় মহিলা সংস্থা আয়োজিত ‘অর্থনৈতিক ক্ষমতায়নে নারী উদ্যোক্তাদের বিকাশ সাধন প্রকল্প (৩য় প্রকল্প)’ এর প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে ভাতা প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতাকালে তিনি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে জাতীয় মহিলা সংস্থা চেয়ারম্যান অধ্যাপক অ্যাডভোকেট মমতাজ বেগম, জাতীয় মহিলা সংস্থার নির্বাহী পরিচালক জাহানারা পারভিন এবং প্রকল্প পরিচালক আনোয়ারা বেগম বক্তব্য দেন। স্পিকার বলেন, যে কোনো উদ্যোগকে সফল করতে হলে অর্থায়ন খুবই জরুরি। নীতি নির্ধারণী পর্যায়ে নারীদের সে সুযোগ নিশ্চিত করা সম্ভব হলে নারীরা ক্ষমতায়িত হবে এবং সমাজের উন্নয়ন অগ্রযাত্রায় তারা বিশেষভাবে ভূমিকা পালন করতে সক্ষম হবে। একজন নারী আর্থিকভাবে স্বাবলম্বী হলে পরিবার, সমাজ এবং রাষ্ট্র উপকৃত হবে। স্পিকার বলেন, নারীদের ঋণ দেয়া নিরাপদ। কারণ যখন তারা ঋণ গ্রহণ করে তখন তারা সর্বাত্মক চেষ্টার মাধ্যমে তা পরিশোধ করেন। ফলে তারা ঋণ খেলাপি হয় না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারীদের জন্য বিধবা ভাতা, মাতৃত্বকালীন ভাতা, ল্যাকটেটিং ভাতা, বয়স্ক ভাতা, ভিজিটি এবং প্রশিক্ষণ কার্যক্রম গ্রহণ করার ফলে বাংলাদেশে দারিদ্রতার হার ২৩ শতাংশে নামিয়ে আনতে সক্ষম হয়েছেন।